অনেকেই বলতে শোনা যায় ‘মেদ ভুঁড়ি, কী করি!” মেদ বা ভূঁড়ি বলতে মূলত আমরা পেটের মেদকে বুঝিয়ে থাকি। নারী পুরুষ উভয়ই পেটের মেদ সমস্যায় ভুগে থাকেন। শরীরের অন্যান্য অংশের চেয়ে পেটে দ্রুত মেদ জমে থাকে। আর একবার পেটে মেদ জমলে তা দূর করা বেশ কষ্টকর হয়। ডায়েট করে ওজন হ্রাস করা গেলেও পেটের মেদ কমানো বেশ কঠিন। দ্রুত পেটের মেদ কমানোর জন্য ব্যায়াম সবচেয়ে বেশি কার্যকর। জিমে গিয়ে নিয়মিত ব্যায়াম করা বেশ সময় সাপেক্ষ এবং কষ্টকর। তাহলে উপায়? উপায় একটি আছে, ঘরে মাত্র ১৫ সেকেন্ড একটি সহজ ব্যায়াম করে কমিয়ে ফেলতে পারেন পেটের মেদ! শুনতে অবিশ্বাস্য শোনালেও এটি সত্যি। জাদুকরী ব্য্যামটির নাম “দ্যা প্ল্যাঙ্ক’!

 

যেভাবে করবেন:

১। ঘাড় এবং কাঁধ সোজা রেখে মাটিতে দৃঢ়ভাবে হাত রাখুন।

২। এই ব্যায়ামের সম্পূর্ণ মনো্যোগ পেটের দিকে রাখবেন, কিন্তু এই ব্যায়ামের প্রেশারটি পা দিয়ে দিতে হবে। পায় হিল করে চাপ পায়ের আঙুল হতে থেকে স্থানান্তর করা যা উরুর পেশীতে টান অনুভব করে দিয়ে থাকে।

৩। এটি পা থেকে মাথা পর্যন্ত সমস্ত শরীর সমতল থাকবে। না ত্রিকোণ আকৃতির অথবা কোন আকৃতির মত নয়।

৪। ব্যায়ামটি সহজ করার জন্য আপনি গভীরভাবে নিঃশ্বাস নিতে পারেন।

৫। কিংবা মনে করতে পারেন আপনার পিঠের উপরে এক গ্লাস পানি রাখা আছে। এটি আপনাকে একদম সোজা থাকতে সাহায্য করবে।

৬। আপনার পায়ের আঙুল এবং হাত মাটিতে থাকবে এবং আপনার পিঠ অব্যশই সমান থাকতে হবে।

৭। পায়ের আঙ্গুল উপর চাপ প্রয়োগ করুন, এবং প্রথমে ডান পায়ে তারপর বাম পায়ে একইভাবে পুনরাবৃত্তি করুন। এটি করার সময় আপনার মনে করা উচিত আপনার শরীরের সম্পূর্ণ ওজন আপনার পায়ের আঙ্গুল এবং হাত উপর নির্ভর করছে।

৮। এভাবে ২০-৬০ সেকেন্ড থাকুন।

৯। আস্তে আস্তে এই ব্যায়াম করার সময়টি বৃদ্ধি করুন। প্রথম যারা করছেন তারা ১৫ সেকেন্ড, তারপর ৩০ সেকেন্ড এবং সবশেষ ৬০ সেকেন্ড পর্যন্ত করার অভ্যাস তৈরি করুন।

 

এটি নিয়মিত এক থেকে দুই মাস করুন, এটি আপনার পেটের মেদ কমাতে সাহায্য করবে।সম্ভব হলে দিনে তিনবার এই ব্যায়াম করুন, আর এক মাসের মধ্যে পেয়ে যান সমান পেট।

 

আরো পড়ুনঃ